তালিকা প্রস্তুত, ‘অপারেশন ফ্রিডম’ নিয়ে মাঠে নামছে সরকার

সেনাবাহিনী, বিজিবি, র‍্যাব ও পুলিশের একটি সম্মিলিত বাহিনীর মাধ্যমে জামাতী জঙ্গীদের নির্মূল করার জন্য শীঘ্রই ‘অপারেশন ফ্রিডম’ নামে দেশব্যাপী একটি অভিযান চালাবে সরকার। সেই সাথে বিভিন্ন নাশকতার সাথে জড়িতদের নামের তালিকা করা হয়েছে। তালিকা ধরে ধরে সাড়াশি অভিযান চালানো হবে বলে জানা গেছে। সাম্প্রতিককালে জামাত-শিবিরের ভয়াবহ আক্রমণ এবং বিশৃঙ্খলা দেশকে গৃহযুদ্ধের দিকে নিয়ে যাচ্ছে বলে বিভিন্ন মহলে নানা আলোচনা, সমালোচনা ও নানামুখি ষড়যন্ত্র চলছে। মহা আতঙ্কের মধ্যে দিন কাটাচ্ছে সাধারন মানুষ।

গত দুই মাস ধরে জামায়াত-শিবিরের সারাদেশে তান্ডবলীলা চালাচ্ছে। তার পাশাপাশি বিএনপিও হরতালসহ বিভিন্ন কর্মসুচীতে সহিংসতা সৃষ্টি করছে। পুলিশের উপর চালানো হচ্ছে নারকীয় হামলা। পুলিশের অস্ত্র কেড়ে নিয়ে তাদের যানবাহনে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হচ্ছে। আবার রেল লাইনের স্লিপার তুলে নাশকতা চালানো হচ্ছে। যানবাহনের পাশাপাশি ট্রেনের বগিতেও অগ্নিসংযোগ চলছে। তাদের ধ্বংসাতক কর্মকান্ড রুখতে গেলে ভয়াবহ সংঘর্ষের রূপ নিচ্ছে। চিহ্নিত আসামীদের গ্রেফতার করতে গিয়ে আইনশৃংখলা বাহিনীর সদস্যরাও আক্রান্ত হচ্ছে।

এরমধ্যে যোগ হয়েছে হেফাজতে ইসলাম ১৩ দফা দাবি বাস্তবায়নে সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নেমেছে। আর এই সংগঠনকে বিএনপি-জামায়াত আওয়ামী লীগ নেতৃত্ত্বধীন সরকারের অন্যতম প্রতিপক্ষ হিসেবে দাঁড় করাতে চাচ্ছে। জামাত শিবির হেফাজতিরা মসজিদের মাইকে মিথ্যা ঘোষণা দিয়ে এলাকাবাসীকে উসকে দিচ্ছে। সম্প্রতি ফটিক ছড়িতে সহিংস ঘটনা ঘটনার নেপথ্যে বিএনপি-জামায়াতের পরো ইন্দন রয়েছে বলে প্রমাণ পেয়েছে পুলিশ।

দেশের প্রধান আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী পুলিশ তাদের ধৈর্য্য হারিয়ে ফেলছে। হরতালকারীদের ওপর একরকম বলা যায় গুলি চালাতে বাধ্য হচ্ছে। গত কয়েকদিনে পুলিশের গুলিতে যেমন অনেক লোক মরেছে, তেমনি নৃসংসভাবে পুলিশও মরেছে জামাত শিবির হেফাজতিদের হাতে।

সরকারের বক্তব্য, যুদ্ধাপরাধী হিসাবে অভিযুক্ত আটক নেতাদের মুক্ত, বিচার বানচাল ও সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে রাজনীতির নামে এমন ধ্বংসাত্বক কর্মকান্ড চালানো হচ্ছে। তাদের লাগাম এখনই টেনে ধরতে হবে। এজন্যই ‘অপারেশন ফিড্রম’ নাম দিয়ে সেনাবাহিনী, র‌্যাব, বিজিবি এবং পুলিশের সৎ মেধাবী ও যোগ্য সদস্যদের বাছাই করে একটি চৌকস বাহিনী মাঠে নামছে। এই বাহিনীকে বিশেষ ক্ষমতা এবং ইনডেমিনিটি প্রদান করে সারাদেশের জঙ্গীদের অপতৎপরতা বন্ধ করার জন্য মাঠে নামানো হচ্ছে।

সূত্র মতে, অপারেশন ফ্রিডম চলাকালীন সময়ে দেশে বিশেষ ধরণের জরুরি অবস্থা জারী করা হবে। ঐ অবস্থায় অপারেশন ফ্রিডমের কর্মকান্ডের খবর প্রকাশে বিশেষ বিধি-নিষেধ আরোপ করা হবে। অপারেশনের মূল উদ্দেশ্য হবে স্বাধীনতা বিরোধী, জঙ্গী, সন্ত্রসী, চিহ্নিত অপরাধী এবং ক্ষেত্র বিশেষ দূর্নীতিবাজদের দমন। এমনকি সরকারি দলের ছত্রছায়ায় যেসব লোক বিভিন্ন অপকর্মে জড়িত তাদেরকেও এই অপারেশনের আওতায় আনা হবে।

গোয়েন্দাদের প্রস্তুতকৃত নাশকতায় নেপথ্যদের নামের তালিকা আইনশৃংখলা বাহিনীর হাতে দেওয়া হয়েছে। গত মাসেই এই তালিকার কাজ সম্পন্ন করা হয়েছে। এর মধ্যে রাজশাহী বিভাগে জামায়াতের ১২৪ জন ও বিএনপির ৬৮ জন, খুলনা বিভাগে জামায়াতের ৯৩ জন ও বিএনপির ৮ জন, রংপুর বিভাগে জামায়াতের ১শ জন, বিএনপির ৮২ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে জামায়াতের ১৩৯ জন, বিএনপির ১০২ জন, ঢাকা বিভাগে জামায়াতের ১৭২ জন, বিএনপির ১১৬ জন, বরিশাল বিভাগে জামায়াতের ৫৪ জন বিএনপির ১০৮ জন ও সিলেট বিভাগে জামায়াতের ৭৫ জন ও বিএনপির ৪৮ জনের নাম রয়েছে বলে জানা গেছে।

তালিকায় থাকা সবাইকে নজরদারীর মধ্যে রাখা হয়েছে। এর মধ্যে অনেক শীর্ষ নেতাও রয়েছেন, যাদের বিরুদ্ধে নাশকতার সুনির্দিষ্ট অভিযোগ রয়েছে

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

৩৯ thoughts on “তালিকা প্রস্তুত, ‘অপারেশন ফ্রিডম’ নিয়ে মাঠে নামছে সরকার

    1. ফটিকছড়ির ঘটনার পরেও সরকারের
      ফটিকছড়ির ঘটনার পরেও সরকারের যদি মনে হয় সময় হয়নি তাহলে আর কোনোদিনই হবে না।
      আমি যতটুকু জানছি এই সপ্তাহে শুরু হবে অপারেশন। হইলেই হয়।

      1. অপারেশন নিয়ে আপনাকে বেশ
        অপারেশন নিয়ে আপনাকে বেশ আশাবাদী মনে হচ্ছে । অবশ্য এই হতাশার কালে আশার আলো দেখতে পাওয়াটাও দারুণ ব্যাপার । বন্ধু, বন্ধুকের নল শত্রু মিত্রু চেনেনা । নলটা ১৮০ ডিগ্রি ঘুরে গেলে কিন্তু গুলিটা আপনার আমার দিকেই ছুটে আসবে …

        1. এইটা তো ভাই মাথায় আছে। কিন্তু
          এইটা তো ভাই মাথায় আছে। কিন্তু দেশের যে অবস্থা তাতে সরকারি বাহিনি ছাড়া প্রতিরোধ গড়ে তোলার সেই আমাদের শক্তি নাই। তাই আশা রাখা ছাড়া কোনো উপায়ও দেখতেছি না

  1. সরকারের এই উদ্যোগকে স্বাগত
    সরকারের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানাই। মুক্তিযুদ্ধের চেতনার পক্ষে সরকারের যে কোন উদ্যোগের পাশে থাকবে এদেশের আপাময় জনগন।

  2. সবই হবে মানুষের চোখ ধোয়ার
    সবই হবে মানুষের চোখ ধোয়ার জন্য….কাজের কাজ কিছুই হবে না….কাজের কাউকে কিছুই করতে পারবে না ……এক যুদ্ধূপরাধিদের বিচার নিয়া যা করলো এখন আর ভালো কিছু আশা করা বোকামি ছাড়া আর কিছু না

  3. দেশদ্রোহীদের দমন করার জন্য
    দেশদ্রোহীদের দমন করার জন্য উক্ত বাহিনীকে আরও আগেই নামানো উচিত ছিল
    তাহলে দেশ এত ক্ষতির সম্মুখীন হত না এবং বহির বিশ্বে দেশের সুনাম অক্ষুন্ন থাকতো ।
    ধন্যবাদ নতুন এই বাহিনীকে । তাদের সজাগ দৃষ্টি থাকতে হবে নিরপরাধ ব্যক্তি যেন ক্ষতির সন্মুখিন না হয় ।

  4. যদি এরূপ কোন ব্যবস্থা সরকার
    যদি এরূপ কোন ব্যবস্থা সরকার নেয়, তা অবশ্যই এদেশের জনসাধারণের ব্যাপক সমর্থন পাবে এতে কোন সন্দেহের অবকাশ নাই। তবে এটা শুধু বিরোধী দলের বিরুদ্ধে ব্যবহার না করে সরকারের মধ্যে ঘাপটি মেরে থাকা দুর্নীতিবাজ, চাটুকার নেতা, অতিভক্ত আমলাদেরও ছাড় দেয়া যাবে না। আমি ব্যক্তিগতভাবে সরকারের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানাই…

  5. এই খবর অনেকদিন আগেই ফেবুতে
    এই খবর অনেকদিন আগেই ফেবুতে দেখছিলাম। ভীষন খুশিও হইছিলাম। কিন্তু অপারেশন আর শুরু হয়না। এখন আবার আশায় বুক বাঁধলাম। অপেক্ষা…… :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি:

  6. ঘটনা আমিও শুনছি এই রকম একটা
    ঘটনা আমিও শুনছি এই রকম একটা এলিট ফোর্স আসতেছে। আরো আগে নামানো উচিত ছিল এই ফোর্সকে। বড্ড দেরী হয়ে গেছে। তারপরও অবশেষে সরকারের শুভ বুদ্ধির উদয় হয়েছে জেনে ভাল লাগছে। পোস্টদাতাকেও ধন্যবাদ এমন একটা খবর আমাদের জানানোর জন্য।

  7. কাজটা আরো অনেক আজেই শুরু করা
    কাজটা আরো অনেক আজেই শুরু করা উচিৎ চিল। এমন গোপন খবর এত আগে এগ প্রকাশ করা মনে হয় উচিৎ হয়নি।

  8. এটা কোন গোপন খবর নয়! সরকারকে
    এটা কোন গোপন খবর নয়! সরকারকে ঘোষনা দিয়েই এরূপ এলিট ফোর্সকে মাঠে নামানো উচিত। তাতে দেশ ও জাতি উভয়ই রক্ষা হবে…

  9. বাহ আমাদের চট্টগ্রামে দেখি
    বাহ আমাদের চট্টগ্রামে দেখি এদের সংখ্যা বেশি। হবেই তো চট্টগ্রাম কলেজ, মহসিন কলেজ এদের মূল আস্তানা।

  10. আমার তো মনে হয় এইটা একটা গুজব
    আমার তো মনে হয় এইটা একটা গুজব ছাড়া আর কিছু না। কারণ বাংলাদেশ সেনাবাহিনী যখন ই কোনও অভিযান এ নামে তখন ওই অভিযান এর খবর আই এস পি আর এর মাধ্যমে জনগণকে অবিহিত করা বাধ্যতামূলক।

    1. আপনে কোন ইদেই থাকেন ভাই। সব
      আপনে কোন ইদেই থাকেন ভাই। সব পত্রিকায় নিউজ হয়া গেলো আর আপনার কাছে এখনো গুজব মনে হচ্ছে। কুলা তো মনে হচ্ছে ভাইঙ্গাই গেছে

      1. আপনই কি দয়া করে কোনও পত্রিকার
        আপনই কি দয়া করে কোনও পত্রিকার লিঙ্ক দিতে পারবেন যেখানে আপনার দেয়া খবর এর সমর্থনে কোনও খবর আছে। আর খবর এর বিশ্বস্ততার জন্য অবশ্যই আই এস পি আর এর বরাত থাকতে হবে। :-B

  11. অপারেশন ক্লিন হার্ট এর হাত
    অপারেশন ক্লিন হার্ট এর হাত ধরে এলো র‍্যাব । পরবর্তীতে র‍্যাবের কর্মকাণ্ড কী পরিনতি ডেকে এনেছে তা আমাদের সবার জানা । এখনো লিমন কে আদালতের দ্বারে দ্বারে ঘুরে বেড়াতে হচ্ছে ন্যয়বিচার চেয়ে । এখন ” অপারেশন ফ্রিডোম ” কী বয়ে আনে দেখার বিষয় । তবে একটা কথা বলে দেওয়া যায় – এই ধরনের পুলিশি রাষ্ট্রে ক্ষমতা কুক্ষিগত করে রাখার জন্য সরকারকে নানান রকমের ফর্মুলা বের করতে হয় । কিন্তু শেষ রক্ষা কী হয় … ? ইতিহাস বলে, …হয় না …

  12. বিশেষ কোন অপারেশন করে লাভ হবে
    বিশেষ কোন অপারেশন করে লাভ হবে না। র‌্যাবের মত আরও অধিক ক্ষমতা দিয়ে স্থায়ী এলিট ফোর্স তৈরী করা হোক। ক্ষনস্থায়ী কোন অপারেশনের কার্যক্রমের ফলাফল নিকট অতীতে ভাল হয়নি..

  13. দেশের যে অবস্থা তাতে জামাত
    দেশের যে অবস্থা তাতে জামাত শিবির হেফাজতি জঙ্গীদের নির্মুলে সরকারের এ ধরনের পদক্ষেপকে ভালো চোখে দেখা যায়। তবে এটাও ঠিক অপারেশন ক্লিন হার্টে কি হয়েছিল সেটা সবার মনে আছে। এখন আশা রাখা ছাড়া তো আর কোনো পথ খোলা নাই

  14. অনেকদিন নাচার সুযোগ পাইতেছিনা
    অনেকদিন নাচার সুযোগ পাইতেছিনা … আপু, খাড়ান এই খবরে আগে একটু নাইচ্চা লই — :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য:

    জামায়াত-শিবির আর হেফাজতি ভন্ড হারামীগুলারে পিডাইয়া তক্তা বানাইয়া ফেলুক। স্বাধীনতাবিরোধী’দের মূল-গোঁড়া সহ উপড়ে ফেলার জন্য সরকারের যে কোন কার্যক্রম’কে জাহাজ এবার আর স্বপ্নে না, বাস্তবে স্বাগত জানাইতেছে . . . . . কিন্তু অপারেশন শুরু হৈবো কখন ??? :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি:

  15. আওয়ামীলীগকে বিশ্বাস করা সম্ভব
    আওয়ামীলীগকে বিশ্বাস করা সম্ভব না , অন্যদের মত যাই হওক আমি আর তাদের বিশ্বাস করিনা। এখন এইগুলা করে আসলে তারা কি করবে সেটাই দেখার ব্যাপার। ঐ “অপারেশন ক্লিন হার্ট” এর মতো কিছু করতে যাচ্ছে কি? আবার এই লিস্টে ব্লগারদেরকেও ঢুকানো হয়নি ত? ব্লগারদের জন্যই আজকে দেশের এই হাল…এই কথা আজকাল অনেকেই বলে। আমরা হাউকাউ না করলেই ত আর তারা এইরকম আচরন করতোনা,হেফাজতে ইসলামও মাঠে নামতো না…ব্লা ব্লা ব্লা। মডারেট মধ্যবিত্তদের চিন্তা একটাই, যেমনে চলতেছে চলুক না ভাই, হুদাই ক্যাচাল করে লাভ কি? ”

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

96 − 91 =