“আই এম খান,আই এম নট টেররিস্ট বাট কটুক্তিকারীর মৃত্যু চাই।

মোহাম্মাদের উম্মতদের অনুভূতি থাকে অন্ডকোষে।অনুভূতি সম্পন্ন অন্ডকোষধারি মমিন সব সময় বলে নবীরে নিয়া কটুক্তু,ইসলাম নিয়ে কটুক্তিকারীকে শাস্তি দিতে হবে।অতি মানিবতাবাদী মমিন গায়ে কাদা লাগাতে চায় না।নাস্তিক হত্যা করা ঠিক না আবার পল্টি দিয়া বলে অনুভূতি সম্পন্ন অন্ডকোষে লাথি দেয়াও ঠিক না।”আই এম খানা,আই এম নট টেররিস্ট” প্লে কার্ড ঝুলানো মমিন ইসলাম শান্তির ধর্ম এইটা প্রমানে মরিয়া।তাহলে যেটা শান্তির বাণী তা প্রমানের জন্য এত চিল্লাচিল্লি কেন?কেন আল্লাহুয়াকবার বলে খুন বোমা হামলা হলে ওদের সন্ত্রাসী বললে অনুভূতি ঝাকি দিয়ে উঠে?আরেক দল আছে যারা গবেষক।আর যে সে গবেষক নয়।আগাগোড়া কোরান গবেষক!কোথায় বোমাহামলা হল,কে আল্লাহুয়াকবর বলে খুন করল,চাপাতি না একে ৪৭ দিয়ে গুলি করল আর তা সহি কিনা তাই গবেষনা এদের কাজ।আর এরাই “আই এম খান….”এর জন্মদাতা।আল্লাহুয়াকবর উচ্চারন ইহুদিনাসাদের মত,চাপাতি ধার ছিল না এই সব বলে এরা নিজেদের টেররিস্ট চরিত্র ফুলের মত পবিত্র বলে প্রচার করে।ইসলামী অন্ডকোষের অনুভূতির দিক দিয়ে এরাই এগিয়ে।এদের চিরন্তন বাণী আমরা টেররিস্ট না,তবে নবীরে নিয়া কটুক্তিকারী কে ছাড়ব না।
তখন জানতে ইচ্ছে করে নবী আর ইসলামের কটুক্তি হয় কখন?কি ভাবেই কটুক্তি করা যায়?
মহানবী ছিলেন মনবদরদী!১৩ খানা বিয়ে করে তাদের আশ্রয় দিয়েছে।তাই নবীকে বহুগামী না বলে ১৩ খানা বিবিধারী বলা উচিৎ।উনি ছিলেন গরিবের বন্ধু(বাংলা ছবির নায়ক)।ছয় বছরের শিশু কন্যাকে বিবাহ করে কন্যার পিতাকে কন্যার ভরণ পোষণের খরচের হাত থেকে বাঁচিয়েছেন।নবী ছিলেন শিশু প্রেমী।তাই আয়সার সাথে বাসর ঘরে পুতুল খেলেছেন।সুতরাং নবী ছিলেন বাল্যবিবাহের বিপক্ষে।নবী খুব মানুষ নিয়ে ভাবতেন।যুদ্ধ তিনি পছন্দ করতেন না।তাই জীবদ্দশায় নিজে ৬৫টা যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছেন।এমনকি তিনি সাহাবিদের কথা চিন্তা করতেন তাই আতর্কিক হামলার মাধ্যমে ইহুদি নাসাদের(মনে রাখবেন নবীর কাছে এরা কিন্তু মানুষ না খারাপ প্রজাতি) হত্যা করে সাহাবীদের বাঁচিয়েছেন।সাহাবীদের কথা ভেবে গনিমতের মাল হিসাবে নারী ধর্ষণ বৈধ করেছেন।
উপড়ের কথা গুলো কি কটুক্তি।আমি তো প্রশংসা করলাম।তবুও মমিনের অনুভূতিতে আঘাত প্রাপ্ত হয়।আর কথা গুলো কি ভুল?ভুলও নয়।তা হলে
আসেন একটা জোক্স বলি-
বিচারকঃতুমি অর্থমুন্ত্রীকে ভোদাই বলছ?
আসামীঃআমি তো ভুটানের অর্থমুন্ত্রীর কথা বলেছি।
বিচারকঃতুমি কি আমকে বোকা মনে কর?আমি কি জানি না কোন দেশের অর্থমুন্ত্রী ভোদাই।
এবার আপনার কাজ!মিলিয়ে নিন।বিচারকের আসনে অন্ডকোষানুভূতি সম্পন্ন মমিনদের সাথে।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

+ 52 = 57