অটিস্টিক শিশুরা দেশের সম্পদআসার

অটিস্টিকদের জীবন মানোন্নয়নে রাষ্ট্রের পাশাপাশি বিত্তবানদের এগিয়ে আসতে হবে সকলের, অটিস্টিক শিশুরা দেশের সম্পদ। করুণা নয়, তাদের অধিকার প্রতিষ্ঠা করার মনোভাব নিয়ে কাজ করতে হবে। মানবিক দৃষ্টিভঙ্গিতে তাদের লালন পালন নিশ্চিত করতে হবে।বর্তমান সরকারের কয়েকটি মন্ত্রণালয় ইতোমধ্যে সমন্বিতভাবে অটিস্টিকদের জীবন মানোন্নয়নে বহুমুখী কর্মকাণ্ড বাস্তবায়ন করছে। ভিন্ন মানববৈচিত্র্যের এ জনগোষ্ঠীকে উন্নয়নের মূলধারায় সম্পৃক্ত করতে গত ৭ বছর ধরে সরকার ব্যাপক কর্মসূচী বাস্তবায়ন করছে। গ্লোবাল অটিজম পাবলিক হেলথ ইনিশিয়েটিভ ইন বাংলাদেশের জাতীয় উপদেষ্টা কমিটির চেয়ারম্যান সায়মা হোসেন ২০১২ সালে জাতিসংঘে অটিস্টিক শিশু ও তার পরিবারের সহায়তায় বিশ্ব সম্প্রদায়কে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে অটিজম আক্রান্ত শিশু ও তার পরিবারের জন্য আর্থ-সামাজিক সহায়তা শীর্ষক প্রস্তাব উত্থাপন করেন যা সাধারণ পরিষদে গৃহীত হয়।যা বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধান মন্ত্রী কন্যা গ্লোবাল অটিজম পাবলিক হেলথ ইনিশিয়েটিভ ইন বাংলাদেশের জাতীয় উপদেষ্টা কমিটির চেয়ারম্যান সায়মা হোসেন দ্বারা সম্ভব হয়েছিল ।তাই রাষ্ট্রের পাশাপাশি বিত্তবানদের এগিয়ে আসার সময় এসেছে এখন।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

4 + 6 =