জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়ের শিক্ষা সংকট; চাই ক‍‍্যাম্পাসভিত্তিক আন্দোলন

গত কিছুদিন আগেও জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়ের শিক্ষা সংকট নিয়ে আলোচনা করতে গেলে আলোচনার বিশাল অংশজুড়ে থাকত সেশনজট,একাডেমিক ক‍্যালেন্ডার না থাকা;বর্তমানে এই শব্দগুলো ইতিহাসের পাতায় লিপিবদ্ধ হয়েছে। তার জন‍্য অবশ‍্য অনেক দিন লড়াই সংগ্রাম করতে হয়েছে শিক্ষার্থীদের।তাই বলে এখান থেকে সকল সংকট একবারেই দূর হয়ে গেছে তা বলা যাবে না বরং নতুন অনেক সংকট জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়ের সাথে যুক্ত হয়েছে।বিশ্বব‍্যাংকের পরামর্শ অনুযায়ী শিক্ষার বাণিজ‍্যিকীকরণের নীল নকশা ইউজিসি ২০ বছর মেয়াদী কৌশলপত্রের আলোকে নানা ষড়যন্ত্র বাস্তবায়নের চেষ্টা চলছে,তার অংশ হিসাবে শিক্ষার মান উন্নয়নের দোহাই দিয়ে ১৮১টি সরকারি কলেজকে বিভিন্ন পাবলিক বিশ্ববিদ‍্যালয়ের অধীনে নেওয়ার মাধ‍্যমে জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়কে দেশের সবচেয়ে বড় প্রাইভেট বিশ্ববিদ‍্যালয় বানানোর ষড়যন্ত্র চলছে।
জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয় নানামাত্রিক শিক্ষা সংকটে জর্জরিত হওয়া সত্ত্বেও এখানে গত কয়েক বছরে বলার মত কোন আন্দোলন গড়ে উঠছে না,আন্দোলন যে একদম হচ্ছে না বিষয়টি এমনও নয়।তবে আন্দোলনগুলো ধরণ জ্বর সারানোর জন‍্য প‍্যারাসিটামলের মত।অর্থ‍াৎ তাৎক্ষণিকভাবে সমস‍্যার সমাধান হলেও মূল সংকটগুলো আড়ালেই থেকে যায়।
জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়ের শিক্ষার সংকট মূলত দুই ধরণের।প্রথমত জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়ের সামগ্রিক শিক্ষার সংকট যেমন- স্বায়ত্তশাসন না থাকা,সিজিপি বৈষম্য, বছর বছর নিত‍্য নতুন নিয়ম আরোপ করা ইত‍্যাদি উল্লেখযোগ্য। অপরটি হচ্ছে প্রতিষ্ঠানভিত্তিক শিক্ষার সংকট।প্রতিষ্ঠানভেদে সংকটগুলো বিভিন্ন রুপ ধারণ করে,তা সত্ত্বেও প্রত‍্যেকটি প্রতিষ্ঠানের কিছু কমন সমস‍্যা বিদ‍্যমান-পর্যাপ্ত শিক্ষকের অভাব,পাঠাগারে বইয়ের সংকট,আধুনিক বিজ্ঞানগার নেই,হলে মেধার ভিত্তিতে সিট বরাদ্দ না দেওয়া……..
প্রয়োজন ক‍্যাম্পাসভিত্তিক আন্দোলন....
জাতীয় বিশ্ববিদ‍্যালয়ের ক‍্যাম্পাসভিত্তিক সমস‍্যা আঙ্গিকগুলো ভিন্ন।উদাহরণস্বরূপ বলা যায়,সরকারি কবি নজরুল কলেজের ভূগোল ডিপার্টমেন্ট প্রয়োজনীয় শিক্ষকের অভাব রয়েছে কিন্তু তার বিপরীতে তেজগাঁও কলেজের ভূগোল ডিপার্টমেন্ট কোন শিক্ষকের কোন সংকট নেই।তবে তেজগাঁও কলেজের ভূগোল ডিপার্টমেন্ট ল‍্যাব নেই।তাই দেখা যাচ্ছে, ক‍্যাম্পাসভেদে সংকটের আঙ্গিকগুলো ভিন্ন।এসব সংকটের কারনে সকল শিক্ষার্থীদের মধ‍্যেই ক্ষোভের আগুন বিরাজমান, প্রয়োজন সেই আগুনে একটুৃখানি ঘি ঢালা।তাই আমাদের ক‍‍্যাম্পাসভিত্তিক সুনির্দিষ্ট দাবীতে আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে।এই সুনির্দিষ্ট দাবীগুলোতে আন্দোলন গড়ে তোলার লক্ষ‍্যে বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন তেজগাঁও কলেজ সংসদ ছাত্র সমাবেশ করে ৯ দফা দাবি ঘোষণা করে এবং দাবি আদায়ের লক্ষ‍্যে ব‍্যাপকভাবে ছাত্র সমাজের মধ‍্যে সাড়া জাগাতে সক্ষম হয়।ইতিমধ‍্যে আন্দোলনের চাপে ইন-কোর্স পরিক্ষা ফি প্রত‍্যাহার, ক‍্যান্টিনের খাবারের মূল‍্য পূর্ণনির্ধারণ করতে বাধ‍্য হয় কলেজ প্রশাসন।কিন্তু এতেই সন্তুষ্ট হয়ে বসে নেই শিক্ষার্থীরা।ছাত্র ইউনিয়ন,তেজগাঁও কলেজের শিক্ষার্থীদের সাথে নিয়ে ধারাবাহিক আন্দোলন কর্মসূচি চালিয়ে যাচ্ছে। সম্পূর্ণ ক‍্যাম্পাসকে ফ্রি ওয়াই ফাই এর আওতায় আনা,লাইব্রেরীতে পর্যাপ্ত সংখ‍্যক বই সরবরাহ,ক‍্যান্টিনে খাবার মূল‍্য আরো সহনশীল করা সহ ৯ দফা সম্পূর্ণ আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে তেজগাঁও কলেজ ছাত্র ইউনিয়ন

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

16 + = 25