প্রেমপত্র-৮৯

প্রেয়সী,
তোমাকে ভালবাসি ঠিক তেমনটাই যেমনটা প্রথম বেসেছিলাম।
এখনো হৃদয়ে মেখেছি তোমার প্রিয় নীল রং ঠিক যেমনটি আগেও হৃদয়ে রেখেছিলাম।তুমি ছাড়া কি দুঃসহ এ পাথার হয়তোবা তোমার জন্যই আমি জন্মছিলাম।
চলার পথে কখনও মূহুর্তের জন্য থেম।দেখবে ভিড়ের মাঝে তোমার পিছনে অবস্থানমান বেহায়া,এই আমিও আছি।তোমার কাছে থাকব বলে এই আমি দুনিয়ার কত কথা শুনি।তোমার হৃদয়ে বাসা বাঁধব বলে বেহায়া হতেও আমি রাজি।অস্তিত্বে,জাগরণে,কল্পনায়,আমার শুদ্ধতম স্পর্শই তুমি।হৃদয়ে রেখ আমাকে যেন তোমারই মাঝে আনন্তকাল আমি বাঁচি।
কতবার বোঝাবো বলো,কতবার জানাব বলো,নিঃস্ব এ জীবনে তুমি আমার সম্বল।
জানতো খুব ইচ্ছে করে,তুমি যদি বুকে নাক ঘষে একজন বলতে,”এই শোন, আমার মন খারাপ। আমার মন ভালো করে দাও”সেই ইচ্ছেতে বহুদিন হয়ে গেল,মনে হয় তোমার মন খারাপ হয়নি।আজ বিকেলের আকাশটা অদ্ভুত মেঘাচ্ছন্ন। আচ্ছা তুমিও কি এখন আকাশ দেখছে? হুড খোলা রিক্সায় দুটো শালিক পাখি বসে আছে। শালিকদের জোড়ে থাকার নিয়ম। জোড় ভাংলেই শালিক একলা হয়ে যায়। একলা শালিকদের অনেক রকম কষ্ট থাকে। জোড়ের শালিক হারানোর কষ্ট।এই যেমন আমার তুমিহীনতার কষ্ট।বুকে নাক ঘষার জন্যে হলেও তোমাকে আমার খুব দরকার।
একটা কথা বলা হয়নি জানো তোমাকে না শাড়ি পড়লে জোস্ লাগে।একজীবনে আমি এমনটা আর দেখি নি।ঠিক যেন কবিতা হয়ে যায়।
বলতে ইচ্ছে করে।
“তুমি যখন শাড়ির আড়াল থেকে,শরীরের জ্যোৎস্নাকে একটু একটু করে খুলছিলে,পর্দা সরে গিয়ে অকস্মাৎ এক আলোকিত মঞ্চ,
সবুজ বিছানায় সাদা বাগান,তুমি হাত রেখেছিলে আমার উৎক্ষিপ্ত শাখায়
আমি তোমার উদ্বেলিত পল্লবে,ঠিক তখনই একটা ধুমসো সাদা বেড়াল
মুখ বাড়িয়েছিল খোলা জানালায়।অন্ধকারে ও আমাদের ভেবেছিল
রুই মৃগেলের হাড় কাঁটা।পৃথিবীর নরনারীরা যখন নাইতে নামে আকাঙ্খার নদীতে,তখন রুই মৃগেলের চেয়ে আরো কত উজ্জ্বল দীর্ঘশ্বাস সহ সেই দৃশ্য দেখে বেড়ালটা ফিরে চলে গেলো।হাড়কাঁটার খোঁজে অন্য কোথা অন্য কোনখানে।দ্বিতীয় সাক্ষী ছিল তোমার হত্যাকারী চোখ আর তৃতীয় সাক্ষী আমার রক্তের সঙ্গে ওতপ্রোত শুয়ে আছে”
আমি শুধু এতটুকু বলে তোমায় প্রেয়সী,খরতাপে রাতজাগা প্রেম যাচ্ছে পুড়ে,দুমড়ে মুচড়ে বাঁধন-বিধি তুমি আসবে নাকি উড়ে?
সত্যি বলছি, আমি তোমারে পারি না এড়াতে,সর্বক্ষন মনে হয় তুমি আমার হাত রাখে হাতে;পৃথিবীর সব কাজ তুচ্ছ হয়,ঝামেলা মনে হয়,
সব চিন্তা প্রার্থনার সকল সময় তুমিহীনা নিজেকে শূন্য মনে হয়,
বড্ড শূন্য মনে হয়!
ইতি
মেঘবালক

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

5 + 5 =