পথিকের গান

হাজার পথ পরিক্রমায় আমি পথিক
জীবনভর শুধু খুঁজেছি নিগূঢ় অর্থ জীবনের;
ঘুরেছি মর্ত্যলোকে,শোকে-
তাপে পুড়েছি,দগ্ধ হয়েছি সূর্যালোকে। তবু-
করে গেছি সন্ধান আদি প্রচ্ছন্ন সে জ্ঞানের।
মিলেছি জনে জনে,পথে
পথে কখনও জিপসি,কখনও আরব
বেদুইনরা হয়েছে সঙ্গী, কখনও সরব
হয়েছি সমুদ্র কল্লোল-কলতানে;
কখনো চলেছি যাযাবর হয়ে দিনভর,করেছি মরুতেই
পদসন্ধি,কখনো বা দিশা ভুলেছি, অমানিশায়
হয়েছি বন্দী,কখনও অসীম জলে
করেছি সন্তরণ,কখনোবা মেরুতে তুষার-হিম শীতে
হেঁটে গেছি প্রাণপণ,কখনো
হারিয়েছি ঘন বন মাঝে,ভেসেছি পর্বতভাঙা ঝর্ণায়,
থামিনি সূর্য অস্তে,খেলেছি গোধূলি আলোক বর্ণায়
রাঙা সুন্দরতম আকাশের সনে
ছুটেছি দিগ্বিদিক,ভেঙ্গেছি প্রস্তর সম বাঁধা যত
ছিল সম্মুখ পানে,পাহাড়ের মত পাঁচিল কত
পেরিয়ে গিয়েছি অমোঘ টানে।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

8 + 1 =