অন্ত সমগ্র ১

এই মুহূর্তে যে আমার পাশে আছে তাকে কিছুক্ষন আগেও আমি কাদতে দেখেছি, অথচ এখন তার চোখে পানি নেই, আরো একটা পরিবর্তন লক্ষ্য করছি, মুখটা কেমন ফুলে গেছে, অথছ যখন কাদছিলো তখন মুখটা শুখনা শুখনা লাগছিলো। আমার সিনেমা দেখার স্বভাব নেই, থাকলে আপনাদের বুঝাতে পারতাম কোন নায়িকার মতো লাগছে, সিনেমায় যেমন মুখ ফুলা নায়িকা আছে তেমন শুখনা মুখওয়ালা নায়িকাও আছে। মেয়েটা প্রায় ৫ মিনিট হলো জানালা খুলে বাহিরে তাকিয়ে আছে, একেবারে তাকিয়ে আছে বললে ভুল হবে, চাঁদ দেখছে বললে ঠিক হবে, আমি অনেক মানুষ দেখেছি যারা চাঁদ দেখতে খুব পছন্দ করে, আমার মেসের শাওন ভাই তো আরো এডভান্স, উনি চাঁদ দেখার জন্য তার আর্মি মামার দুরবিন চুরি করে এনেছিলেন,
একবার উনি আমাকে আর দুরবিন নিয়ে চাঁদ দেখতে বসেছিলেন, আমায় বললেন,
–অন্ত এইটা নাও, জোরে টানো, বুকে অনেক্ষন ধোয়া রাখো, দেখবা তুমি ওই চাদে চলে গেছো,
-কিন্তু শাওন ভাই, চাদে যেয়ে আমি কি করবো?
–তাহলে কই যাবা?
-তারায় যাবো?
–কেনো? তারায় কেনো যাবা? তারায় মানুষ যায়??
চুপ গেলাম, শাওন ভাইও চুপ গেলো, শাওন ভাই মাঝে মাঝে খুব আফসুস করে, আমার নাকি বয়সই হইছে, আমি নাকি এখনো ছোট, ছোটই রয়ে গেছি, নইলে ছোট বেলায় কে না কে বলছিলো, অন্ত তোমার মা বাবা হচ্ছে ওই দুইটা তারা, সবসময় তোমাকে দেখছে্ , এই কথা আমি এখনো মনে রাখি?
-এক্সকিউজ মি ভাইয়া,
–জি বলুন,
-বাসে উঠার পর থেকেই দেখছি আপনি আমার দিকে তাকিয়ে আছেন, কোন সমস্যা? নাকি কিছু বলবেন? নাকি আপনার স্বভাব মেয়েদের দিকে তাকিয়ে থাকা?
–আসলে কিছু বলবো,
-হা বলেন, বলা শেষ করে অন্যদিকে তাকিয়ে থাকুন,
–কোনদিকে তাকাবো?
-আমি কি জানি? আজব তো, আপনি কি এটাই বলতে চাচ্ছেন?
–না, বলতে চাচ্ছিলাম আপনি কিছুক্ষন আগে কাদছিলেন,
-তো? কেনো কাদছিলাম, ওইটা জানতে চাচ্ছেন? আপনে ……………..
–বলতে চাচ্ছিলাম, আরেকবার কাদবেন? সবাইকে সবটা ভালো লাগে না, আপনার কান্নাটা খুব সুন্দর, সবার তাই করা উচিত, যাতে তাকে সবচেয়ে সুন্দর লাগে,
মেয়েটা আমার দিকে তাকিয়ে ছিলো অনেকক্ষন, বাস থেকে নেমে পিছনে তাকিয়ে দেখেছিলাম, তখনো তাকিয়ে ছিলো, তবে এইবার হা করে থাকায়, আগেরবারের থেকে অন্যরকম লাগছিলো, কাদলে একরকম, না কাদলে আরেকরকম, আর হা করে থাকলে আরেকরকম, প্রকৃতি মনে হয় এইগুনটা মেয়েদের আলাদা ভাবে দিয়েছে।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

৪ thoughts on “অন্ত সমগ্র ১

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

71 − = 66