সাধারন ভাবনা

অনেক দিন ধরে কিছু লিখি না ।
আমি জানি অনেকেই আমার লেখা পাড়ার জন্য অপেক্ষা করে ।
তার ভেতরে অনেকেই আমাকে চিঠি দিচ্ছে লেখালেখি চালিয়ে যেতে ।
বিশেষ করে ওপার বাঙলার বেসি ।
একবার ভেবেছি আর লেখব না । কি লাভ হবে লিখে ?
আমি অনেক ভেবে চিন্তা করে দেখেছি এ দেশে লেখালিখি করা আর উলবনে মুক্ত ছড়ানো এক কথা ।
কিন্তু তবুও ভাবি কেন আমি লিখব না । আমি আমার ভাব প্রকাশ করবো এ আমার অধিকার । আমি মনে করি চেতনার দ্বার একবার উন্মচন হলে বাধা দেওয়ার আর কেউ থাকে না । তাহলে কিসের এত সংশয় কিসের এত সঙ্কজ । সকল সঙ্কজকে দূরে ঠেলে দিয়ে আবার শুরু করলাম সত্যের অন্বেষণ করা । এবং তা সকলকে জানাতে হবে ।
আজ যে বিষয় নিয়ে লিখবো তা এক প্রকার সকলের জানা একটা বিষয় ।
জদিও এই নিয়ে কেউ ভাবে না , প্রশ্ন করে না , জানেনা আর জানার চেষ্টা ও করে না ।
ধার্মিকরা সবসয় একটা চিন্তাকে কেন্দ্র করে তাদের ধর্মীও কর্মকাণ্ড করে থাকে । আর সেই চিন্তার কেন্দ্র বিন্দু হল স্বর্গে বা জান্নাতে জাওয়া ।
কিন্তু প্রশ্ন হল জান্নাতে গিয়ে কি করবে ? সেখানের মুল কাজটা কি ?
গবেষণা করে দেখা গেল সেখানে সেক্স ছাড়া কিছু করার নেই । সেক্স করার জন্য যাবতীয় যা দরকার সব পাওয়া যাবে ।
কিন্তু নারীর জন্য কি ব্যাবস্থা রয়েছে ?
পুরুষ জান্নাতে যাবে ৭২ টি হুড়ের জন্য । ভালো কথা মেনে নিলাম কিন্তু একজন নারী জান্নাতে গিয়ে কি পাবে ? তার জন্য কি কোন বডি বিল্ডার এর ব্যাবস্থা আছে? । আমার জানামতে কিচ্ছু নাই । ও হ্যা আছে যদি ভালো কাজ করে তাহলে সে হবে ৭২ জনের শ্রেষ্ঠ হবে । ছি ছি আমার ভাবতেই ঘেন্না লাগে ।
এবার একটু ভিন্ন বিষয় নিয়ে বলি
আচ্ছা আমি যদি কাউকে বলি আপনি কার উম্মতকে কাধে করে চরে জান্নাতে যেতে চান ? এক কথায় বলবে মুহাম্মদের । তখন আমার ইচ্ছা হয় আচ্ছা আপনি যে তার উম্মত সে কি এখন পর্যন্ত জান্নাতে গিয়েছেন ?
তখন যথা উত্তর না দিয়ে আপনি আমাকে মারতে আসবেন ।
না আসলেও দৈব হাতিয়ার ব্যাবহার করবেন মানে অভিশাপ দিবেন ।
আর একটা বিষয় নিয়ে কিছু বলে আজকের মত ক্ষান্ত দিব ।
ধর্মীও কিতাবে আছে পৃথিবীতে যেদিন একজন ভালো মানুষ রইবে না । মানে আল্লার প্রতি এক বিন্দু ঈমান থাকবে না তখন কেয়ামত হবে ।
ধরুন কেয়ামতের ৫ মিনিট আগে যে মারা জাবেন তার আজাব কেন ৫ মিনিট হবে ?
কিন্তু যে আজ থেকে ২০ হাজার বছর আগে মারা গেছেন তার আজাব এত বেসি ক্যান হবে ?
এর উত্তর অবশ্য ধার্মিকরা যুক্তি দারা খণ্ডাতে পারবে না । তবুও আমি অনুরধ করবো আপনারা এই বিষয় নিয়ে আলোচনা করুন। পণ্ডিতের কাছে জানতে আগ্রহি হন ।
আজ আর নয় ,বলতে বলতে অনেক কিছু বলে ফেলেছি । ভুল ত্রুটি হলে ক্ষমা চোখে দেখবেন ।
ধন্যবাদ
– টিটপ?oh=668648b22f05c3641f13d691b637cb29&oe=58A70A4E” width=”400″ />

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

+ 68 = 73