স্যাটায়ার: স্বর্গালাপ

-“কে কে স্বর্গে যেতে চাও হাত তোলো!”
অবাক হয়ে তাকিয়ে দেখলাম আমি ছাড়া সবাই হাত তুলেছে।
-“ডান কাতারের বাম পাশ থেকে শেষের জন বাদে প্রত্যেককে স্বর্গে পাঠাও!”
সাদা কাপড় পড়া একজনকে নির্দেশ দিলো একটি অদৃশ্য কন্ঠ।
আওয়াজটার উৎপত্তিস্থল খোজার চেষ্টা করলাম। চারপাশে শুধু সাদা দেয়াল ছাড়া আর কিছুই দেখা যাচ্ছে না।
কিছুক্ষণ নিরবতার পর সেই কন্ঠটা আবারো কথা বলে উঠল,
-“কি হে ছোকরা? তুমি স্বর্গে যেতে চাও না কেন?”
-“আমি জবাব দিতে বাধ্য নই! তাছাড়া কারো মুখ না দেখে কথা বলতে অস্বস্তি হয় আমার!”
এরপর আর কিছু মনে নেই।
যখন জ্ঞান ফিরলো আমার সামনে এক তরুণ বসে আছে।
-“এইবার আমার প্রশ্নের উত্তর দাও!”
-“কে আপনি? আপনাকে কেন উত্তর দেব?”
-“আমাকে চিন্তে পারছো না ছোকরা? আমি ইশ্বর!”
-“ও আচ্ছা! আমি স্বর্গে যাবো না কারন স্বর্গ বলে কিছু নাই! আর থাকলেও যেতাম না!”
-“তোর ট্যালেন্ট আছে ছোকরা! ভাল্লাগসে তোকে!”
-“যদি অভয় দেন একটা প্রশ্ন করতাম!”
-“বল ছোকরা!”
“আপনার দাড়ি কই?”
-“ছিলো আজকেই সেইভ করসি!”
-“হঠাৎ সেইভ করার প্রয়োজন মনে করলেন? পৃথিবীতে থাকাকালীন সময়ে তো এক বারও করেন নাই!”
-“বড্ড বেশি বাজে বকছো ছোকরা!”
-“আপনাকেও আমারই মতন মনে হচ্ছে!”
-“এই কে আছিস? বেয়াদবটাকে এখান থেকে নিয়ে যাতো!”
-“কেন আপনার পাওয়ার কমে গেসে নাকি? আপনার ক্ষমতা নাই আমাকে সরানোর?”
-“আমি সব করতে পারি! কিন্তু করি না! আমি সর্ব শক্তিমান!”
-“খালি কলসি বাজে বেশি!”
-“এ ভাই তুই যা এখান থেকে! তোকে সহ্য হচ্ছে না মাইরি!”
-“একি ভাষার ছিড়ি! শিখলেন কোথায়?”
-“আমি শিখবো কিরে? আমিই তো শিখাই!”
-“তার মানে যতসব নোংরা গালাগালি সব আপনার অবদান?”
-“না ওগুলো শয়তানের কারসাজি!”
-“আর শিষ্টাচার, নর্মতা, ভদ্রতা এগুলোও কি শয়তানের কারসাজি?”
-“না এগুলো আমার ক্রেডিট!”
-“বাহ! কি সু-মহান আপনি! ভালোর ক্রেডিট নিয়ে নিলেন নিজের কাঁধে আর নষ্টগুলো শয়তানের কাঁধে!”
-“সে তোর ক্ষুদ্র মস্তিষ্কে ঢুকবে না ছোকরা! যার যে ক্রেডিট নেওয়ার কথা সে সেই ক্রেডিটটাই নিয়েছে!”
-“আমার বুঝে কাজ নাই! শয়তানডারে বড় দেখার সাধ হয় ওস্তাদ! যদি একটু দেখাইতেন?”
-“সে কিরে! এতক্ষণেও শয়তান কে চিনতে পারিস নাই!”
-“না! কই শয়তান?”
-“কাউকে বলিস না যেন! তোকে ভাল লেগেছে ছোকরা! তাই তোকেই বলতেসি!”
“আচ্ছা বলেন! কাউকে বলবো না!”
-“আমিই শয়তান! আমিই ইশ্বর!!”

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

4 + = 12