যারা নিজের সাধু মাখা চেহারার ভেতরে চোর পুষেছিল তাদের মুখস উন্মেচন করার সময় এসেছে

যারা নিজের সাধু মাখা চেহারার ভেতরে চোর পুষেছিল তাদের মুখস উন্মেচন করার সময় এসেছে।
আমি ছোট মানুষ ছোট মাথা। তাই আমার এই কিঞ্চিত অভিজ্ঞতাই তা বলে।
এতে অনেকেই অনেক কিছু মনে করতে পারে। ?oh=692e8ffc1bbdb6b24d17837ad7625149&oe=58D1C1AD” width=”400″ />
কিন্তু আমি তো আমার অভিমত প্রকাশ করব ।
যদি নাই করতে পারি তাহলে তো আমি নিজেই ৫৭ ধারা পালন করলাম
প্রতিবাদ আর করলাম কই ।না এটা আমি পারবো না। আমি দুমুখো সাপ নই ।
ট্রাম্প সাহেব তার নির্বাচনী ইস্তেহারে যা বলেছে তার প্রত্যেকটা বিষয় আমার কাছে ভালো লেগেছে।
যদিওবা সে তার বক্তব্যে উগ্রতা প্রকাশ করেছে।
তবুও যে বিষয় গুলর উপর সে উগ্রতা প্রকাশ করেছে তা আমি মনে করি এ এক সাহসের কথা। যা এর আগে কোন প্রেসিডেন্ট করে নি।
উনি একজন ব্যাবসায়ি এবং অরাজনৈতিক ব্যাক্তি হয়ে আজ বা গত সময়ে ও এই সাহসিকতা প্রকাশ করেছেন । তাতেই আমি সন্তুষ্টি ।
এবং আমি আমার ক্ষুদ্র জ্ঞান থেকে বলব ট্রাম্পের বক্তব্য ই ছিল মার্কিনী নাগরিকদের মনের আরালে জমে থাকা কথা।
যা প্রকাশ করতে পারেনি হিলারি ওবামা যখন ক্ষমতায় ছিল।
আমি মনে করি অন্ততপক্ষে ট্রাম্প হিলারির মত দুমুখো সাপ হবে না।
এক দিয়ে আই এস আই আই এস এর অস্ত্র সরবারাহ করবে।আর অন্য দিকে ড্রন হামলার কথা বলে হুমকি দিবে।
সব থেকে মজার বেপার ওই আই এস আই এস তো স্বয়ং হিলারিই বানিয়েছেন ।
বাদ দেই সেই সব কথা ।
যাদের খুব মন খারাপ হচ্ছে তাদেরকে বলি আমিরাকান রা আমাদের মত বলধ নয় যে না বুঝে না শুনে ট্রাম্পকে ভোট দিয়েছে । যারা ভোট দিয়েছে তারা অত্যন্ত মেধাবি ও প্রগতিশীল ।
ট্রাম্প সাহেবের ৩টি বিষয় আমাকে খুব মুগ্ধ করেছে
১। অবৈধ অভিবাসী উচ্ছেদ
২।জঙ্গিদমনে কঠোরতা
৩। চিনের সাথে বাণিজ্য না করে
আর মেক্সিকোর সিমান্তে দেয়াল করা নিয়ে আমি কিছু বলব না ।
তার পরো বলব সীমান্তে কড়াকড়ী করলেও কি সেইটা আমেরিকার জন্য ভালো হবে না? আমার জানামতে মেক্সিকোর সিমান্ত দিয়েই আসে ড্রাগ ও ক্রিমানাল । এগুল বন্ধ হওয়া উচিৎ ।
আমার এক ঘনিষ্ঠ লোক বলেছে তরুণরা সবাই ট্রাম্পকে সমর্থন করেছেন ।
এর কারন ও আছে ।
লক্ষ লক্ষ অভিবাসী আছে যারা কিনা অবৈধ বাসিন্ধা । তারাই সেখানকার লোকাল কর্মসংস্থান গুল দখল করে বসে আছে । যদি অবৈধ অভিবাসীদের লাথ্যি দিয়ে বেড় করে দেয় তাহলে বেকার মার্কিনী তরুণরা কাজ পাবে ।
আমি মনে করি এটা করা উচিৎ । আর কেনই বা পরের দেশে তুমি অবৈধ ভাবে থাকবা ?
দ্বিতীয়ত জঙ্গিবাদ দমনে উনি খুব উগ্রতা দেখিয়েছে । তাই বার বার মুসলিমের কথা বলেছে । এখন আপনি একবার দৃষ্টি দিয়ে দেখবেন জঙ্গি আসলে কোন ধর্মের ভিতর থেকে বেড় হয়ে আসে । তাই হয়তোবা সে তার ভাব প্রকাশ করেছে সাধারন নাগরিকের মত। এখানে দোষের কি । যেটা সত্য তিনি সেটাই বলেছে ।
তৃতীয় যে বিষয়টি কথা বলেছেন চিনের সাথে বাণিজ্য না করার চিন্তা । কারন চিন থেকেই আসে জত সফটওয়ার যা মানব জীবনের জন্য শুভ নয় । এছাড়া আমি মনে করি কঠিন চাপে পড়বে চীন। চীন একটা অনৈতিক মানসিকতার দেশ হিসেবে গড়া। তাদের সস্তা ভাইরাসের মত পণ্য সংক্রমণ বন্ধ করা উচিত ব্যাবহার।
আর একটা বিষয় আমার খুব ভালো লেগেছে যে রাশিয়া ও আমেরিকা এক সাথে কাজ করবে । তাই আজ পুতিন সাহেব ভাষণ দিল। মানে জঙ্গি দমন করবে এক সাথে । এতে আমি মনে করি ভালো হবে । কারন এতো বড় ২ শক্তিশালী দেশ যদি এক সাথে জঙ্গি দমনে কাজ করে তাহলে আমার মনে হয় না কোন অপশক্তি মাথাচারা দিয়ে উঠতে পারবে ।
কারন আই এস আই এস এর প্রধান হাতিয়ার তা সব আমিরিকা মানে হিলারির কাছে ক্রয় করত । এখন আর সেই সুযোগ পাবেনা বলে আশা করি ।
একটা মজার ব্যাপার না বললেই নয় । একদিন ধরে আমি শুধু বাংলাদেশের নিউজ নয় বিশ্বের অনেক দেশের খবর শুনেছে ।
এর ভেতরে একটা দিকের সাথে আমাদের দেশের খুব মিল আছে যেমন
পাকিস্তান, নাইজেরিয়া, উরুগুয়ে, কেনিয়া, সৌদি আরব, ইরান, তুরস্ক , এরা সবাই মানে এই দেশের গণমাধ্যম গুল হিলারিকে এগিয়ে নিয়ে গেছে ।
পরে বুঝলাম ঘটনা এই দিকে নয় ঘটনা আর এক দিকে । দেখলাম সব শিক্ষাহিন দেশ গুলই লাফাইছে হিলারিকে নিয়ে ।
পরিশেষে যা বলতে চাই আমার এক প্রিয় লেখিকা একটা কথা লিখেছে
উগ্রবাদের দমন উগ্রবাদ দিয়ে হয় না
আমি তাকে যদি প্রশ্ন করি তাহলে কি দিয়ে হয় ?
তাহলে উনি এক বাক্য দিয়ে বলবে উগ্রবাদের দমন হয় সহনশীল আচারন দিয়ে ।
কিন্তু আমি তাকে বলতে চাই আজ যারা এই বিশ্বে উগ্রবাদ করছেন বা ভাইরাসের মতো ছড়াচ্ছেন তারা কি সহনশীল কি তা বোঝে ?
তারা কি বোঝে মানবকিতা কাকে বলে ?
না তারা তা বোঝে না । তারা বোঝে নিজে কি করে মরে অন্যকে মারতে হবে ।
তাই আমি বলি শক্ত কোন বস্তু কাটতে হলে ধারালো হাতিয়ার ছারা আর কোন বিকল্প নেই । অতএব বর্তমান এই অবস্থার জন্য ট্রাম্পের ভূমিকাই অপরিসীম হবে যদি সে তার কথা রাখে।
প্রিয় পাঠক পাঠিকা আমি আবার বলি এই যা লেখা এ আমার ছোট মাথার খুদ্র জ্ঞানের অভিমত। আমি লিখতে পারিনা আমি চেষ্টা করি। আমার লেখায় অনেক ভুল ত্রুটি থাকবে। আশাকরি ইতিবাচক চিন্তা দ্বারা বিবেচনা করবেন।
ধন্যবাদ
টিটপ হালদার

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

89 − 87 =