অবাক

আর কোন বিষয়টাতে
আপনার অবাক হতে বাকী আছে বলুন।
অথবা বলুন, আপনি আর কোন কোন বিষয়ে
অবাক হতে চান।
পানামা পেপারসে আপনি অবাক হন।
উইকিলিকসে আপনার কপালে
অবাক হওয়ার ভাজ।
নোবেল পুরস্কারে অবাক হয়ে
ভুপৃষ্টে আপনার গড়াগড়ি।
আপনি ভোট দিয়ে অবাক হন।
আবার ভোট দিতে না পেরেও অবাক।
তনু নিরাপদে ধর্ষিত হলো
আর আপনি অবাক হলেন।
বিচারক বললো,
তনু হত্যার বিচার সম্ভব না।
তাও আপনি অবাক ।
বলুন, আপনি আর কোন কোন বিষয়ে
অবাক হতে চান।
আমরা এভাবে যতদিন অবাক হবো
ওরা আমাদের অবাক করতেই থাকবে।
ওরা আমাদের পৃথিবীটাকে নরক বানিয়ে
আমাদেরকে অবাক করে দেয়,
আমরা অবাক হতে হতে
অবাক হতে হতে
ওদের বানানো নরকের আগুনে
ঝলসে ঝলসে যাই।
ওরা ওদের স্বর্গটা দেখিয়ে
আবার আমাদের অবাক করে।
আমরা অবাক হই।
আমারা অবাক হই প্রতিদিন, প্রতিরাত
সন্ধ্যা সকাল, নির্জন দুপুর,বিষন্ন বিকেল।
আর নিয়ত অবাকে, অভাবে, অখুশে,অসুখে
এক অযাচিত জীবন কাটাই।
আসুননা, এভাবে সারা জীবনভর
সার্কাস দেখে অবাক না হয়ে
বরং ওদের অবাক করে দেই।
কেবল একটি কাজেই ওরা অবাক হবে,
যদি অবাক করার যন্ত্রটা
ওদের হাত থেকে কেড়ে নেই।
আসুন না, এতে অবাক হওয়ার কিছু নেই।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

25 − = 20