প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, হ্যাঁ আপনাকেই বলছি

আজ ১৫ই আগষ্ট। একটি শোকাবহ দিন। আপনার বাবা বঙ্গবন্ধুর মৃত্যুর শোক দিসব। ১৯৭৫ সালের এই দিনে আপনার বাবা বঙ্গবন্ধুর ৩২ নম্বর বাড়িতে নেমে এসেছিল ভয়াবহ বর্বরতা। নরপশু হিংস্র হায়েনারা আপনার গোটা পরিবারকে নির্মমভাবে হত্যা করেছিল। এমনকি আপনার কনিষ্ঠ ভাই শিশু রাসেলকেও নিস্তার দেয়নি। গত সপ্তাহে ধর্মান্ধ ইসলামিষ্টরা নাস্তিক ব্লগার নিলয়কে চাপাতি দিয়ে হত্যা করেছে ৭ই আগষ্ট ২০১৫ তে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, একটু এই ছবিগুলোর দিকে তাকান। এখানে ছবিতে দেখা যাচ্ছে ইসলামিষ্টদের চাপাতির আঘাতে নিহত নিলয়ের রক্তে তার বাসার মেঝে টকটকে লাল হয়ে গেছে। ঠিক আপনার বাবার মতো। ধানমন্ডি ৩২ নম্বর বাড়ির মেঝেটা ঠিক ৪০ বছর আগে নিলয়ের বাসার মেঝের মতো আপনার বাবার রক্তে এভাবেই লাল হয়েছিল। আপনার বাবা যে ধর্ম-রাজনীতি হীন একটি অসাম্প্রদায়িক দেশ গড়ার স্বপ্ন দেখতেন, নাস্তিক ব্লগার রাজীব- অভিজিৎ-বাবু-অনন্ত-নিলয়রা সেই স্বপ্নের সঠিক বাস্তব রুপ দিতে চেয়েছিলেন। তাঁরা সেই স্বপ্নের অসাম্প্রদায়িক দেশ গড়ার কারিগর ছিলেন। অথচ আজ আপনি ক্ষমতার জন্য, ধর্মান্ধ মুসলমানের ভোটের জন্য আপনার বাবার আদর্শই ভুলে গেলেন! একের পর এক আঁতাত করে চলেছেন আপনার বাবার আদর্শবিরোধী পাকিস্তানপন্থী ধর্মান্ধ মৌলবাদী মানুষগুলোর সাথে। ধর্মীয় মৌলবাদী হেফাজত ইসলামের নেতা আল্লামা শফিকে ৩২ কোটি টাকার জমি দান করছেন। সেই শফি প্রকাশ্যে নাস্তিক হত্যা ওয়াজিব বললেও তাকে গ্রেপ্তার করছেন না। উল্টো অসাম্প্রদায়িক দেশ গড়ার কারিগর নাস্তিক ব্লগারদের গ্রেপ্তার করার হুমকি দিচ্ছেন। যারা আপনার বাবার মতো রাষ্টধর্মহীন, হিন্দু-মুসলিমের বৈষম্যহীন একটি অসম্প্রদায়িক রাষ্ট গড়ার কাজে নিয়োজিত ছিল। নাস্তিক ব্লগার রাজীব- অভিজিৎ-বাবু-অনন্ত-নিলয়রা ধর্মীয় মৌলবাদী ইসলামিষ্টদের হাতে নির্মমভাবে হত্যার শিকার হবার পরও আপনি ঘাতকদের এখনো গ্রেপ্তার করছেন না, ৯০% মুসলিমের দেশে ভোট কম পাওয়ার এই আশংকায়। আপনি মাদ্রাসা শিক্ষা থেকে প্রগতিশীল অমুসলিম লেখকদের লেখা উঠিয়ে দিয়ে, ৫০০ মসজিদ নির্মাণ করার ঘোষনা ও মদিনা সনদে দেশ চালানোর কথা বলে, আপনি আপনার বাবার আদর্শের প্রতি চরম অবমাননাটা করলেন!

ক্ষমতালোভী নিকৃষ্ট ইতর ঘৃণ্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, আপনি আপনার বাবার রক্তের উপর, বুকের উপর দাঁড়িয়ে বঙ্গবন্ধুর রাষ্টনীতি ও তার আদর্শের রাজনীতির সাথে যতটা বিশ্বাসঘাতকতা করেছেন, আমার মনে হয় বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বিরোধী বিএনপি-জামাতও অতটা বিশ্বাসঘাতকতা করেনি। শেখ হাসিনা, আজ বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে আপনাকে কি বলে তিরস্কার করতেন জানিনা। হয়তো বলতেন, -তুই আমার কন্যা না, তুই একটা বিশ্বাসঘাতক! তোকে জম্ম দিয়েছি বলেই আজ আমি লজ্জিতবোধ করছি!
শেখ হাসিনা, আপনার সুমতি হোক, আপনার মধ্যে অসাম্প্রদায়িক চেতনার উদয় হোক। আপনার মধ্যে গনতান্ত্রিক রাষ্টনীতির শুভবোধ আসুক এটাই প্রত্যাশা করি। আর আপনি ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন, আপনার দীর্ঘায়ু কামনা করছি…….

১৫–৮–১৫

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

+ 27 = 31