কোটি টাকার প্রশ্নন

কথোপকথন ২৪

-মামা।কই যাবেন? মেলায়?

-না মামা। মেলায় যাবো না।

-সবাই তো যায়।

-সবার গায়ে রঙ আছে।আমার তো এত নাই।

-আমারও নাই। রিসকা চালাইলে গায়ের রঙ চুইয়া চুইয়া পড়ে।পানি কালারের রঙ।

-বাসায় কে কে আছে আপনার?

-বউ আর ছোট মাইয়া। বড় পোলায় আলগা থাহে।

-কেন?আপনারে দেখে না?

-না।জোয়ান হইয়া গেছে তো।এহনকার দিনে পোলাপান জোয়ান হইলে সব দেহে খালি বুড়া বাপ মা ছাড়া।

-মেয়ের কি অবস্থা?

-ছুডু।তয় কাজ কাম পারে।
কাজ করে এক সাহেবের বাসাত।

-কালকে পহেলা বৈশাখ এটা জানেন?

-মাস পয়লা জানি। কিন্তু মাস পয়লা আর মাস শেষে কোনো ফারাক নাই আমরার।

-তা ঠিক।

-মামা একটা কথা কমু?

-কি?

-এই যে হাতি ঘুড়া বানাইয়া মিছিল করে এতে টেহা খরচ হয় না? পরে তো হাতি ঘুড়া ফালায় দেয়। তাই কি না?

-জ্বী।

-তাইলে এই টেহাগুলান নষ্ট না কইরা গরীব মিসকিনদের দিলেই পারে।

-সরকারও চুপ,বামদলও চুপ।

-কিছু কইলেন মামা?

-না। যারা করে ওদের জিজ্ঞেস করেন।আমরা সাধারণ পাবলিক। এত বুঝিনা মামা।

(*আমার কাছে রিক্সাওয়ালা মামার প্রশ্নটা কোটি টাকা মূল্যের।)

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

83 − 74 =