অযাচিত কচলা

“ধর্ম না থাকলে বাঙালি বাঁচতে পারবে কিন্তু সাহিত্য সংস্কৃতি না থাকলে বাঙালি না মরে পঁচে যাবে”


এই ছবিটা এই প্রজন্ম মনে রাখবে আজীবন। মনে করবে ভবিষ্যৎ প্রজন্ম। এই কাহিনী চর্চিত হবে যুগের পর যুগ।

১। গত সপ্তাহে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সাথে ছবি যতটা ভালো লেগেছিল ঠিক ততটাই বিপরীত অবস্থা শফি হুজুরের সাথে। আমি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অনেকটা বুদ্ধিদীপ্ত ভাবতাম। কিন্তু শফি হুজুরের সুরে সুর মিলিয়ে বললেন সুপ্রিমকোর্ট এর সামনে ভাস্কর্য তাঁর ভালো লাগেনি। বড় অদ্ভুত লাগলো কথাগুলোই, যদিও তিনি এ কথাও না বলেও শফি হুজুরদের শান্ত করতে পারতেন গতবারের মতো ৪০ কোটি টাকার সম্পত্তি দিয়ে।

২। জিয়াউর রহমান ও স্বৈরশাসক এরশাদ যে কাজটি করেছিলেন তারই শেষ কাজটি করলেন বাংলাদেশের জাতির পিতার কন্যা শেখ হাসিনা। খালেদা জিয়াও এত পরিমাণ ইসলামীকরণ এর দিকে যান নি বা করেন নি। তিনি রাজাকারের সংসদে বসিয়েছিলেন, দেশ লুটপাটে ভরে গিয়েছিল ঠিকই কিন্তু তা থেকে উত্তরণ মোটামুটি ভাবে হয়ে গিয়েছে। কিন্তু যেভাবে শেখ হাসিনা হেফাজত তোষণ করছেন, তাতে নিকট ভবিষ্যতে বাংলাদেশ কোথায় যাবে বলা মুশকিল। এরশাদও চেয়েছিল আজীবন ক্ষমতায় থাকবে, পেরেছিল কি? যদিও এখনো আছে অন্যভাবে।

৩। সৌদিআরবের টাকায় মডেল মসজিদ মাদ্রাসা তৈরি করা হচ্ছে। আধুনিক বিশ্ব যখন এগিয়ে যাচ্ছে তখন আমরা আরো পিছিয়ে যাচ্ছি। আরো অন্ধকার দিকে ধাবিত হচ্ছি।
যেখানে আধুনিক বিশ্বে সুদক্ষ মানবসম্পদ এর চাহিদা সেখানে প্রতিবছর উৎপাদিত হাজার হাজার আলেম ওলেমা দিয়ে জাতি কি করবে। দেশের জিডিপিতে কোন ভূমিকা কি রাখবে? এই আলেম ওলেমারা জাতির ইতিহাসে এই পর্যন্ত কি দিয়েছে?

৪। বঙ্গবন্ধুর হাত ধরে যে জাতি ওআইসি যোগ দিয়েছিল, সে জাতি তাঁরই সুযোগ্য কন্যার হাত ধরে আরো একধাপ এগিয়ে যাচ্ছে। তিনি বারবার বলেন তাঁর উপর আস্থা রাখার জন্য। তিনি জাতির পিতার কন্যা গর্বভাবে বলেন।

৫। পাঠ্যপুস্তকে সাম্প্রদায়িকতার বিষ ঢুকিয়ে দিয়ে কখনো সামনে এগনো যায়না। এতে ছোট বাচ্চাগুলোর মনে বিভক্তি তৈরি হচ্ছে। বাংলা বই আর ধর্ম বই এক অবস্থানে আছে। কোথায় সাহিত্য আর কোথায় ধর্ম।

৬। পরিশেষে, “দুধ কলা দিয়ে পোষা সাপও সুযোগ পাইলে ছোবল মারে।” হাজার বছর ধরে একসাথে বসবাস বাঙালির এখন পরিচয় হচ্ছে হিন্দু অথবা মুসলমান।

“ধর্ম না থাকলে বাঙালি বাঁচতে পারবে কিন্তু সাহিত্য সংস্কৃতি না থাকলে বাঙালি না মরে পঁচে যাবে।”

শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published.