তোমাকে খুব দরকার ছিল

আমার কথাকে যখন ওরা বাজেয়াপ্ত করেছিল
তখন তোমাকে খুব দরকার ছিল ;
আমার উদ্বিগ্ন সময়ের স্তরে স্তরে
যখন বিষণ্ণতা জমেছিল
তখন তোমাকে খুব দরকার ছিল।

শহরের পথে একান্ত একাকিত্বে,
ভেঙ্গে পড়া শরীরের অবষন্নতায়
তোমাকে খুব দরকার ছিল ;
ম্রিয়মাণ সন্ধ্যার শুষ্কতায়
তোমাকে খুব দরকার ছিল ;
রাত্রিযাপনের অনিশ্চয়তায়
তোমাকে খুব দরকার ছিল।

বহমান স্রোতের বিপরীতে চলতে,
অন্য গানের লিমেরিক্সে,
এগিয়ে চলার অন্য প্রশ্নে,
অন্য সত্যের সন্ধানে
তোমাকে খুব দরকার ছিল।
সীমাবদ্ধতার প্রাচীর ভাঙ্গতে,
নিষিদ্ধ কথা শোনাতে,
তোমাকে খুব দরকার ছিল।

বিপ্লবের বার্তা মঞ্চে
নতুন কোন ভাষণের সূচনায়,
নতুন কোন চিন্তার উত্তেজনায়
তোমাকে খুব দরকার ছিল।

কবিতার পঙক্তিতে পঙক্তিতে-
তোমাকে খুব দরকার ছিল।
তোমাকে খুব দরকার ছিল।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

86 − = 84