বধির সময়

তোমাকে শোনা যাচ্ছে না অনেকবছর
আমি কি বধির হয়ে আছি?
একটা কবুতর ঝপঝপ উড়ে যাচ্ছে,
শুনে চমকে যাচ্ছি।
যতবার তার পাখা ঝাপটায় প্রতিবার শব্দ শুনি
পটকা ফেটে বেরিয়ে যাচ্ছে কবুতরের ছানা।
মাঝরাতে পূর্ণিমার চাঁদ; তোমার মত
নিবিড়ভাবে বসে আছে শব্দহীন পূজারবেদী।

কোন পাখি, আকাশে উড়ার জন্য বসে রয়
ক্রোশ যোজন দীর্ঘ প্রতিক্ষা করে।
তীরের ফলা দিয়ে কেটে যার বুক দৈব রক্তে ভেজা
উদান সঞ্চার করে রয় অনেকক্ষণ।
আরো পরে, সবুজ সকালের ক্ষেত আর শিশির,
প্রেমমুগ্ধ শুভতার উপহার।
আমাদের একান্ত যাপনের সময়
সন্ধ্যাপ্রদিপ জ্বালব, জোনাক ভর্তি মাঠে চন্দ্র পড়ে রবে।

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

+ 30 = 35