ছোটদের জন্য মানববাদ- কেন পড়বেন ???

“ছোটদের জন্য মানববাদ” বইটি পড়া শেষ করলাম ।

Nada Perat Radfrau অসাধারণ বোধ দিয়েছে । যে কোন শিশুর জন্য পৃথিবীতে নিজের জীবন সাজানোর জন্য একটি অসাধারণ দিকনির্দেশনা সহ শিক্ষনীয় বই । Asif Mohiuddin অনেক অনেক বেশী ধন্যবাদ পাওয়ার যোগ্য । আসিফ বইটিকে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে ঢেলে সাজিয়েছেন । তার ভাবানুবাদ বাংলাদেশী পাঠকদের জন্য অত্যন্ত শক্তিশালী ভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে ।

এখন আশা যাক আপনি কেন পড়বেন এই বই :

১। ছোটদের জন্য সহজ ও সাবলীল ভাষায় বইটি উপস্থাপন করা হয়েছে । কারো সূক্ষনূভূতিতে যেন আঘাত না লাগায় সে বিষয়ে আসিফ যথেষ্ট সতর্ক ছিল ।

২। মানববাদ মানবতা কি ? মানববাদ হওয়ার বৈশিষ্ট্যগুলো কি ? মানববাদ মানুষ আমরা কেন হবো ? মানববাদ মানুষের চিন্তার সাথে কি কি বিশেষণ সম্পূরক তা সহজ ভাষায় বোঝানো হয়েছে ।

৩। পৃথিবীতে বেঁচে থাকার পাশাপাশি কিছু দায়িত্ব পালন করা প্রতিটি মানুষের উদ্দেশ্য । এই উদ্দেশ্য বাস্তবায়ন করতে প্রয়োজন সকল বাঁধা অতিক্রম করে নিজ চিন্তাকে কি ভাবে সমৃদ্ধ করা যায়।

৪। বিজ্ঞানের সৃষ্টি কিভাবে পৃথিবীতে প্রগতির দিকে নিয়ে যাচ্ছে এবং একটি শিশু কিভাবে নিজেকে সৃষ্টির সাথে সম্পৃক্ত করতে পারে ।

৫। পৃথিবীতে আমাদের বেঁচে থাকার সাহায্যকারী বিষয় হল সম্পর্ক । এই সম্পর্ক কেন প্রয়োজন ? এই সম্পর্ক কি ভাবে প্রখর করা যায় তার দিক নির্দেশনা দেয়া হয়েছে ।শুধু মাত্র মানুষকে ভালবাসলেই সম্পর্ককে প্রখর হবে এমন যারা ভাবছেন তাদের মস্তিষ্কে নতুন চিন্তার খোরাক আসবে ।

৬। নিজেকে আলোকায়ন করতে সৃষ্টি রহস্য , মানবাধিকার, মানববাদ ,ফ্যাসিবাদ,বিশ্বাস , অবিশ্বাস কতটুকু প্রয়োজনীয় এবং এর গুরুত্ব সম্বন্ধে ভাববোধ দেয়া হয়েছে।

৭। আমাদের পৃথিবীতে বরেণ্য মানববাদের উদাহরণ টেনে একটি শিশু কিভাবে লিঙ্গ বৈষম্য , নারীবাদকে সম্মান করে প্রতিটি মানুষের সমান অধিকার নিশ্চিত করে একজন সহসী ও গর্বিত মানুষ হতে পারে ।

৮। শিশুর জীবন কিভাবে মানবতা , নৈতিকতা , সহানুভূতিশীল, বন্ধুত্ব, একাত্মতা দিয়ে জীবনতে উপভোগ্য করে সুন্দর জীবনযাপন সম্ভব তার যৌক্তিক বর্ণনা অভিভাবকের ন্যায় দেয়া হয়েছে ।

৯। পৃথিবী গ্রহটিতে মানুষ ও বিভিন্ন প্রজাতি প্রাণের বসবাস।কেন পরিবেশগত ক্ষতির থেকে পৃথিবীকে রক্ষা করা একজন মানববাদ শিশুর দায়িত্ব ? পরিবেশের সম্পদ ব্যবহারে যৌক্তিকতা কতটুকু ?নিজের অভ্যাস সংযতের মাধ্যমে মানববাদীরা কিভাবে পরিবেশ সংরক্ষণ করবে ।ময়লা যেখানে সেখানে কেন ফেলা উচিত না । ময়লা কিভাবে মানব কল্যাণে ব্যবহার করা যায়।

১০। একটি শিশুর নিরাপদ জীবন যাপনে কি কি পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন তার বর্ণনা আমাকে মুগ্ধ করেছে । হাত ধোঁয়া থেকে রাস্তা পারাপার কিংবা ভাল স্পর্শ মন্দ স্পর্শ সবই সাবলীল ভাবে আলোচনা করা হয়েছে ।

১১। শিশুর বাঁচার মতো জীবন গড়তে নৈতিকতা , ন্যায়বিচার, সততা , শোভনীয় আচরণ , নিজ দায়িত্ব , নাগরিক অধিকার, সত্যসন্ধানে ব্রতী ইত্যাদি কি ভাবে জীবনকে সমৃদ্ধ করে ফেলে ।

১২। মানববাদীরা কেন একে অন্যের সাহায্য করবে?এখানে ব্যাখ্যা করা আছে কিভাবে মানববাদীরা একে অপরের সাহায্য করলেই সমাজের সকলের অধিকার ও মর্যাদা সুরক্ষিত হয়।

এখানে কোন ধর্মকে বিন্দুমাত্র আঘাত করা হয়নি । তবে পৃথিবীতে ধর্মীয়বাদ , জাতীয়তাবাদ , বর্ণবাদ এসব মানুষকে মানববাদ হওয়ার অন্তরায় হয় । এসব এড়িয়েও কিভাবে মানববাদ হওয়া যায় তার যথেষ্ট যৌক্তিক ধারাবাহিকতা বিশ্লেষণ করা হয়েছে। প্রতিটি মানুষের মনে প্রশ্ন করার ক্ষমতা জাগ্রত করতে হবে । প্রশ্নই জীবনের উত্তর খোঁজার সহায়ক হবে । আর সব থেকে আকর্ষণীয় ছিল আসিফের সিদ্ধার্থের খোলা চিঠি ।আমার মনে হয় সব পিতাই সন্তানের জন্য এমন চিঠি লিখে রেখে যেতে চাবে ।

“ Do your best “

জীবন গড়ে তুলতে বাঁচার মতো বাঁচতে হবে । মানববাদই একমাত্র আপনাকে কিংবা আপনার শিশুকে প্রকৃত মানুষের মতো বাঁচাতে শিখাবে ।

ধন্যবাদ ।

 

ফেসবুক মন্তব্য

১ thought on “ছোটদের জন্য মানববাদ- কেন পড়বেন ???

  1. আমরা সবাই বইটি পড়বো। নিজেদের মধ্যে অবশিষ্ট যে টুকু অমানবিক বোধ আছে সেটা ও ঝেড়ে ফেলবো আমরা। আসুন আমরা সবাই বইটি পড়ি এবং মানবিকতার, যুক্তিবাদের এক নতুন দিক উন্মোচিত করি।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

44 − 36 =