কৃষ্ণ বর্ণা নারী

কৃষ্ণ বর্ণা নারী
কৃষ্ণ বর্ণ হেতু ,তব নয়নে কেন বারি ?
পার্লারের ওই স্বস্তা হস্তে ছোয়াও অধর তোমার
মুদ্রা বিনিময়ে হইবে কি কালোর সৎকার ?
কৃষ্ণবর্ণ হোক তোমার অহংকার
হার মনিবে তোমার কাছে ঐ নষ্ট শ্বেতাঙ্গের নোংরা আঁধার l

বিধাতা তোমারে করিয়াছে কালো
সেইতো তোমাকে রাখিবে ভাল
বর্ণ ভুলিয়া অন্তরে তাই শুভ্রতা তুমি ঢাল l

সেই হইবে আপন তোমার
স্বস্তা রূপ যার মনে যোগায়না আহার

ফেসবুক মন্তব্য
শেয়ার করুনঃ

৭ thoughts on “কৃষ্ণ বর্ণা নারী

  1. দূর মিয়া কোবতে লেখার অন্য
    দূর মিয়া কোবতে লেখার অন্য সাব্জেক্ট খোজেন। কালা মাইয়া হইলেই তারে শান্তনা দিতে হবে আগে নিজে এই কালচার থেইক্যা বাইর হন। এরপর মাইয়ারা সস্তা প্রসাধনী কালচার থেইক্যা এমনিই বাইরাবোনে

    1. আশা করি আপনি সান্ত্বনার
      আশা করি আপনি সান্ত্বনার সংজ্ঞা টা চেক করবেন এবং অন্যের লেখার বিষয় ঠিক করে দিতে নিজের মেধার অপচয় রোধ করবেন ,আমার লেখার বিষয় কি হবে টা ঠিক করার যথেষ্ট জ্ঞান আমার আছে,সে বিষয়ে আমিconfident,কাজেই oversmartness নিজের কাছে রাখুন ।

  2. হুম, বর্ণবাদ বিরোধী কবিতা
    হুম, বর্ণবাদ বিরোধী কবিতা এটি।
    কালো-ফর্সা বিষয়টা আমাদের মানসিক সমস্যা। মানসিক বিকারগ্রস্থতা থেকে এসব বিভেদ তৈরী হয়েছে। তবে আমাদের প্রজন্ম এসব বিকারগ্রস্থতা থেকে বেরিয়ে আসার চেস্টা করছে। সেই চেস্টার ফসল আপনার এই কবিতাটি। (যদিও ইদানিং কবিতা আমি একটু কম বুঝি)

  3. বিধাতা তোমারে করিয়াছে

    বিধাতা তোমারে করিয়াছে কালো
    সেইতো তোমাকে রাখিবে ভাল

    — এই সান্ত্বনা না দিলেও পারতেন । এছাড়া প্রথম ৬ লাইন দুর্দান্ত !

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

73 − 64 =